আজ ১৬ই ফাল্গুন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ, ২৯শে ফেব্রুয়ারি, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ


তিন অবরোধে রাজধানীতে তীব্র যানজট, ভোগান্তি

(আজকের দিনকাল):চাকরি স্থায়ীকরণের দাবিতে জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে লাগাতার অবরোধ কর্মসূচি চলছে বাংলাদেশ শিক্ষক সমিতির। এরই মধ্যে চাকরি স্থায়ীকরণ দাবি এবং লোক নিয়োগে আউটসোর্সিংয়ের প্রতিবাদে রোববার রাজধানীর কারওয়ানবাজারে এফডিসি রেলগেট এলাকায় রেললাইন অবরোধ করেন রেলওয়ে শ্রমিকরা।

অন্যদিকে ভাড়া বাড়ানোর দাবিতে শাহবাগ-কাঁটাবন এলাকায় এদিন সড়ক অবরোধ করেন ট্রেইনি চিকিৎসকরা। এই তিন অবরোধের প্রভাবে রাজধানীজুড়ে তীব্র যানজট সৃষ্টি হয়। এতে ভোগান্তিতে পড়েন নগরবাসী।
যানজটে গাড়ি আটকে যাওয়ায় হেঁটে গন্তব্যে যেতে দেখা গেছে অনেককে। প্রেস ক্লাব, পল্টন, মৎস্য ভবন, কারওয়ানবাজার, শাহবাগ, শেরাটন হোটেলসংলগ্ন ভিআইপি রোড এবং কাকরাইল মোড়ে সিগন্যালে দীর্ঘক্ষণ ব্যক্তিগত গাড়ি, সিনএজিচালিত অটোরিকশা, মোটরসাইকেল, বাস আটকে থাকে। ভাড়ায় চালিত মোটরসাইকেল থেকে নেমে পথচারীদের হাঁটতে দেখা গেছে।

রেলপথ অবরোধের কারণে সারা দেশের সঙ্গে রাজধানীর ট্রেন যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে যায়। কমলাপুর ও বিমানবন্দর রেলওয়ে স্টেশনে অনেক যাত্রী ঘণ্টার পর ঘণ্টা অপেক্ষা করেন।

দুপুরে বিমানবন্দর রেলস্টেশনে শরীফুল ইসলাম নামের এক যাত্রী ভোগান্তির চিত্র তুলে ধরে বলেন, ‘আমার স্ত্রী গুরুতর অসুস্থ। ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন। তাকে দেখতে যাব। কিন্তু ট্রেন চলাচল বন্ধ থাকায় যাত্রা বিলম্ব হচ্ছে।’ দুর্ভোগের কথা জানান কমলাপুর রেলওয়ে স্টেশনে অপেক্ষমাণ অনেক যাত্রী।

সায়েন্সল্যাব থেকে শাহবাগ মোড়ে আসতে দেড় ঘণ্টার বেশি সময় লেগেছে বলে জানান মিডলাইন বাসের চালক মো. আতিক। তিনি বলেন, ডাক্তাররা সড়ক অবরোধ করায় জ্যামে আটকে ছিলাম।

মোটরসাইকেল চালক নিরব মিয়া বলেন, নিউমার্কেট থেকে শাহবাগে আসতে ১ ঘণ্টা লেগে গেছে। তাও জ্যাম ছাড়ছে না। দীর্ঘক্ষণ জ্যামে বসে আছি। চিকিৎসকরা রাস্তা আটকে রাখছেন। আবার দেখি, পুলিশের সঙ্গেও ঝামেলা করছে। সব মিলিয়ে ভুক্তভোগী আমরা সাধারণ জনগণ।

পথচারী শামীম আহমেদ বলেন, দীর্ঘক্ষণ বাসের জন্য অপেক্ষা করছি। কিন্তু বাস আসছে না। চিকিৎসকরা সড়ক ছাড়ছেন না। যারা জরুরি কাজে নিয়োজিত তারাও এই সড়ক ব্যবহার করতে পারছেন না। এমনকি অ্যাম্বুলেন্সও আসতে দিচ্ছেন না তারা।

Share

এ ক্যাটাগরীর আরো সংবাদ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     এ ক্যাটাগরীর আরো সংবাদ