আজ ১৪ই ফাল্গুন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ, ২৭শে ফেব্রুয়ারি, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ


বিরোধী মত দমনে আদালতকে ব্যবহার করছে সরকার: জামায়াত

(আজকের দিনকাল): বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামীর কেন্দ্রীয় মজলিসে শুরা সদস্য ও ঢাকা মহানগরী দক্ষিণের সহকারী সেক্রেটারি ড. আবদুল মান্নান বলেছেন, আওয়ামী সরকার গণতন্ত্রে বিশ্বাস করে না। ফলে তারা প্রতিবাদী কণ্ঠকে স্তব্ধ করে দিতে চায়। এজন্য সরকার অন্যায়ভাবে রাষ্ট্রীয় ও গণতান্ত্রিক প্রতিষ্ঠানগুলোতে হস্তক্ষেপ করছে।

তিনি বলেন, আওয়ামী সরকার নিজেদের ক্ষমতাকে দীর্ঘায়িত করার জন্য রাষ্ট্রের আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী ও বিচার ব্যবস্থার অপব্যবহার করছে। ফরমায়েশি ও ন্যায় ভ্রষ্ট রায়ের মাধ্যমে জামায়াতসহ বিরোধী মতের রাজনৈতিক নেতাকর্মীদের সাজা প্রদান করছে। এরই ধারাবাহিকতায় জামায়াতে ইসলামীর ঢাকা মহানগরী দক্ষিণের সেক্রেটারি ড. শফিকুল ইসলাম মাসুদের বিরুদ্ধে ফরমায়েশি রায়ে অন্যায়ভাবে সাজা প্রদান করেছে সরকার। জনগণ এই ন্যায় ভ্রষ্ট রায় প্রত্যাখ্যান করেছে।

জামায়াতের এ নেতা বলেন, দ্রব্যমূল্যের উর্ধগতিতে জনজীবন দুর্বিষহ অবস্থায় রয়েছে। যারা পেঁয়াজের বাজার নিয়ন্ত্রণ করতে ব্যর্থ হয়েছে তারা আর যাই হোক জনগণের ভাগ্যের পরিবর্তন করতে সক্ষম না। এমতাবস্থায় জনগণের অধিকার আদায়ের জন্য জামায়াতে ইসলামীসহ বিরোধী দলগুলোর ডাকে দেশব্যাপী সর্বাত্মক অবরোধ চলছে। গণদাবি মেনে নিয়ে অবিলম্বে সরকারকে পদত্যাগ করে নির্দলীয় তত্ত্বাবধায়ক সরকারের কাছে ক্ষমতা হস্তান্তর করার আহবান জানাচ্ছি। অন্যথায় ফ্যাসিবাদের পতন না হওয়া পর্যন্ত এই আন্দোলন সংগ্রাম অব্যাহত থাকবে ইনশাআল্লাহ।

বুধবার একাদশ দফার অবরোধের দ্বিতীয় দিনে রাজধানীর মতিঝিলে সড়ক অবরোধে নেতৃত্ব প্রদানকালে এসব কথা বলেন তিনি। এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন ঢাকা মহানগরী দক্ষিণের মজলিসে শুরা সদস্য, আবু আম্মার, এসএম শামসুল বারী, মু’তাসিম বিল্লাহ, নুর উদ্দিন, আবু রায়হানসহ জামায়াত ও শিবিরের বিভিন্ন পর্যায়ের নেতাবৃন্দ।

এছাড়া আজ একই দাবিতে রাজধানীর যাত্রাবাড়ী, ডেমরা, সবুজবাগ, সাইন্সল্যাব ও আজিমপুরে সড়ক অবরোধ করে ঢাকা মহানগরী দক্ষিণ জামায়াতের নেতাকর্মীরা।

এদিকে ঢাকা মহানগরী উত্তরের কর্মপরিষদ সদস্য ও প্রচার-মিডিয়া সম্পাদক মু. আতাউর রহমান সরকার বলেছেন, আওয়ামী বাকশালীরা দেশের গণতন্ত্র, গণতান্ত্রিক মূল্যবোধ ও নির্বাচন ব্যবস্থাকে রীতিমত প্রহসনে পরিণত করেছে। তারা নির্বাচনের নামে পুতুল নাচের আয়োজন করে রাষ্ট্র ক্ষমতা কুক্ষিগত করতে রায়। কিন্তু সচেতন জনতা তাদের সে ষড়যন্ত্র ঐক্যবদ্ধভাবে প্রতিরোধ করবে। তিনি নির্বাচনের নামে চর দখলের মহড়া প্রতিহত করতে সকলকে ময়দানে অকুতোভয় সৈনিকের ভূমিকা পালনের আহবান জানান।

সরকারের পদত্যাগ ও নির্বাচনকালীন কেয়ারটেকার সরকার প্রতিষ্ঠার দাবিতে ১১তম দফার অবরোধের শেষ দিনে ঢাকা মহানগরী উত্তরের হাতিরঝিল-তেজগাঁও অঞ্চল আয়োজিত রাজধানীর হাতিরঝিলে সড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ প্রদর্শনকালে এসব কথা বলেন। বিক্ষোভ প্রদর্শনকালে আরও উপস্থিত ছিলেন ঢাকা মহানগরী উত্তরের মজলিসে শূরার সদস্য মো. আলাউদ্দিন, জামায়াত নেতা নুর উদ্দিন, নোমান উদ্দিন ও ছাত্রনেতা আব্দুর রহমান প্রমুখ।

Share

এ ক্যাটাগরীর আরো সংবাদ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     এ ক্যাটাগরীর আরো সংবাদ