আজ ১৫ই ফাল্গুন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ, ২৮শে ফেব্রুয়ারি, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ


ডাকাতিতে বাধা দেওয়ায় প্রবাসীর স্ত্রীকে হত্যা

(আজকের দিনকাল):দাগনভূঞায় প্রবাসীর বাড়িতে ডাকাতির সময় বাধা দেওয়ায় প্রবাসীর স্ত্রী মমতাজ বেগম পারুল (৫৬) নামে এক নারীকে পিটিয়ে ও শ্বাসরোধে হত্যা করা হয়েছে। বুধবার রাত ৯টার দিকে উপজেলার জায়লস্কর ইউনিয়নের বারাহীগুনী গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

নিহত মমতাজ বেগম পারুল ওই বাড়ির প্রবাসী আতাউর রহমানের স্ত্রী ও জায়লস্কর ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান আব্দুল মতিন চৌধুরীর ছোট বোন।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, মমতাজ বেগমের স্বামী আতাউর রহমান ও বড় ছেলে মেহেদী হাসান তুহিন দীর্ঘদিন ধরে সৌদি আরবে থাকেন। ছোট ছেলে বাড়ির বাইরে ছিলেন। একমাত্র মেয়েরও বিয়ে হয়ে গেছে। মেয়ে স্বামীর বাড়ি থেকে মাকে বারবার কল দিয়ে মায়ের সাড়া না পেয়ে রাত ১০টায় পিতার বাড়িতে ছুটে এসে ঘরের দরজা খোলা পান এবং ভেতরে ঢুকে মায়ের গলায় কাপড় পেঁচানো মৃতদেহ দেখতে পেয়ে স্থায়ীদের সহায়তায় পুলিশকে খবর দেন।

মমতাজের ছোট ছেলে মাহমুদুল হাসান বলেন, ঘটনার সময় সহপাঠীদের নিয়ে পাশের মাঠে ব্যাডমিন্টন খেলছিলাম। বড় ভাইয়ের স্ত্রী তার বাবার বাড়িতে ছিলেন। মা একাই ঘরে ছিলেন। এ সুযোগে পূর্বপরিকল্পনা অনুযায়ী আমাদের বাড়িতে ডাকাতির ঘটনা ঘটানো হয়েছে। ডাকাতিতে বাধা দেওয়ায় মাকে পিটিয়ে ও শ্বাসরোধে হত্যা করা হয়েছে। ডাকাতরা নগদ টাকা ও স্বর্ণালংকার লুট করে নিয়ে গেছে।

খবর পেয়ে ফেনী পুলিশ সুপার মো. জাকির হাসান রাতেই ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন।

দাগনভূঞা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আবুল হাসিম বলেন, দুর্বৃত্তদের হামলায় ওই নারীর মৃত্যু হয়েছে। এটি ডাকাতি কিনা তা তদন্ত করে দেখা হচ্ছে। পুলিশ মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য ফেনী সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে।

Share

এ ক্যাটাগরীর আরো সংবাদ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     এ ক্যাটাগরীর আরো সংবাদ