আজ ৯ই শ্রাবণ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ, ২৪শে জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

বোলিং দাপটে জয় পেল বাংলাদেশ

(আজকের দিনকাল):ব্যাটিং প্রত্যাশা মতো না হলেও বোলিংয়ে দারুণ বাংলাদেশ। লক্ষ্য তাড়ায় জিম্বাবুয়েকে অল্পতেই থমকে দেয় বাংলাদেশ। এক কথায় সাইফউদ্দিন-রিশাদ হাসানদের দাপটে জয় পেল বাংলাদেশ।

মিডল অর্ডারে মান রক্ষা হয়েছে ব্যাটিং ইনিংসের। জিম্বাবুয়েকে দিতে পেরেছে ১৬৬ রানের ইনিংস। এই লক্ষ্য তাড়া করতে নামা জিম্বাবুয়েকে দারুণ বোলিং দিয়ে চেপে ধরেছিল বাংলাদেশ। রান তাড়া করতে নামা জিম্বাবুয়ের স্কোরবোর্ডে ৩৩ রান তুলতেই তিন উইকেট তুলে নেয় বাংলাদেশ। মোহাম্মদ সাইফউদ্দিন ও তানজিম সাকিবের গতিতে বিপাকে ছিল সফরকারীরা।

সর্বশেষ জিম্বাবুয়ে ৯ উইকেট হারিয়ে ১৫৬ রান সংগ্রহ করতে সক্ষম হয়। বাংলাদেশকে হারাতে আরও ৯ রান লাগত জিম্বাবুয়েকে।

লিটন-শান্তর ব্যর্থতায় বাংলাদেশ ছিল নড়বড়ে। তবে, মাঝে তাওহীদ হৃদয় ও জাকের আলি মিলে মান বাঁচান। মিডল অর্ডারে দুই তরুণের ব্যাটে চড়ে জিম্বাবুয়েকে ১৬৬ রানের লক্ষ্য দিয়েছে বাংলাদেশ।

চট্টগ্রাম জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে মঙ্গলবার আগে ব্যাট করতে নেমে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৫ উইকেটে স্কোরবোর্ডে ১৬৫ রান তুলেছে বাংলাদেশ। দলের হয়ে সর্বোচ্চ ৫৪ রান করেছেন তাওহিদ।

শুরুটা মোটেও ভালো হয়নি। প্রথমত, মন্থর ব্যাটিং। দ্বিতীয়ত, টপ অর্ডারদের ব্যর্থতা। দলের এই পরিস্থিতিতে মিডল অর্ডারে নেমে আশা দেখাচ্ছেন তরুণ দুই ব্যাটার তাওহীদ হৃদয় ও জাকের আলি। দুজন মিলে মন্থর ব্যাটিংয়ের চাপ সামলে বাংলাদেশকে এগিয়ে নিচ্ছেন। দলীয় রান ১০০ পার করে ছুটছে বাংলাদেশ।

জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে আগে ব্যাট করতে নেমে বিপাকে ছিল বাংলাদেশ। একে ব্যাটিং শুরু করেছে মন্থর, তার ওপর হারাচ্ছে উইকেট। প্রথমে বিদায় নিয়েছেন হতাশায় ডুবে থাকা লিটন দাস। এরপর তিনে নামা নাজমুল হোসেন শান্তও টিকতে পারেননি। লিটনের মতো তিনিও ফেরেন বোল্ড হয়ে।

দলীয় ২৯ রানে দ্বিতীয় উইকেট হারায় বাংলাদেশ। ৪ বলে ৬ রান করেন অধিনায়ক। মন্থর ব্যাটিংয়ে ভুগছে বাংলাদেশের ব্যাটাররা।

ব্যাট হাতে সময়টা মোটেই ভালো যাচ্ছে না লিটন দাসের। লম্বা সময় ধরে ব্যাটে রান নেই। জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে চলমান সিরিজে ধারাবাহিক ব্যর্থ হওয়া লিটন আজও ডুবলেন হতাশায়। মন্থর ব্যাটিংয়ে শুরু করা লিটন দাঁড়াতেই পারলেন না বেশিক্ষণ। ১৫ বলে ১২ রানেই মুজারবানির বলে বোল্ড হন লিটন। জিম্বাবুয়ে বোলারের হাফ বলিতে এলোমেলো হয়ে যায় লিটনের স্টাম্প।

জিতলেই সিরিজ নিশ্চিত। হারলে বাড়বে অপেক্ষা। এমন সমীকরণের ম্যাচে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে এক পরিবর্তন নিয়ে মাঠে নেমেছে বাংলাদেশ ক্রিকেট দল।

চট্টগ্রাম জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে ম্যাচটিতে একাদশে এসেছেন তানজিম সাকিব ও তানভীর ইসলাম। তাদের জায়গা দিতে একাদশে নেই শরিফুল ইসলাম ও শেখ মেহেদি। অর্থাৎ একজন অলরাউন্ডার বাদ দিয়ে একজন বাড়তি বোলার নিয়ে লড়াইয়ে নামে বাংলাদেশ।

বাংলাদেশ একাদশ : নাজমুল হোসেন শান্ত (অধিনায়ক), লিটন দাস, তানজিদ হাসান তামিম, তাওহিদ হৃদয়, মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ, তানজিম সাকিব, তাসকিন আহমেদ, তানভীর ইসলাম। রিশাদ হোসেন, জাকির আলি অনিক ও মোহাম্মদ সাইফ উদ্দিন।

Share

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     এ ক্যাটাগরীর আরো সংবাদ